সিরিয়ায় সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় নিহত ৯৪

SHARE
syria_126718ওয়ার্ল্ড ক্রাইম নিউজ বিডি ডট কম,আন্তর্জাতিক প্রতিনিধি,২০ ফেব্রুয়ারি :  ঢাকা, ২০ ফেব্রুয়ারি, এবিনিউজ : সিরিয়ার রাজধানী দামেস্কের নিকটবর্তী বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত এলাকা পূর্ব গৌতায় সরকারি বাহিনী এবং তাদের মিত্রদের বিমান হামলা ও গোলাবর্ষণে শিশুসহ ৯৪ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। এ সময় আহত হয়েছেন ৩২৫ জন।
আজ মঙ্গলবার যুক্তরাজ্যভিত্তিক যুদ্ধ পরিস্থিতি পর্যবেক্ষক সংস্থা সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটসের (এসওএইচআর) বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ তথ্য জানিয়েছে।
সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা জানিয়েছে, নিহতের মধ্যে ২০ শিশু রয়েছে।
এসওএইচআরের প্রধান রামি আবদেল রহমান বলেন, পূর্ব গৌতা শহরতলির আবাসিক এলাকাগুলো মূলত তাদের হামলার লক্ষ্যবস্তু। সরকারি বাহিনী বড় ধরনের আরও হামলার পরিকল্পনা করছে।
এ ব্যাপারে সিরিয়ার সেনাবাহিনী কোনো মন্তব্য করেনি। তবে দেশটির সরকার বলছে, শুধু বিদ্রোহীদের লক্ষ্য করেই এ হামলা চালানো হয়েছে। সিরিয়ায় সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় নিহত ৯৪
জাতিসংঘের আঞ্চলিক সমন্বয়ক পানোস মুমাৎজিস বলেন, পূর্ব গৌতায় মানবিক সংকটে পড়েছেন বেসামরিক নাগরিকরা। সেখানকার অনেককেই বাধ্য হয়ে মাটির নিচে তাদের পরিবার নিয়ে থাকতে হচ্ছে।
স্থানীয় এক চিকিৎসক জার্মানিভিত্তিক সংবাদ সংস্থা ডিপিএকে জানিয়েছেন, আবাসিক এলাকাগুলোয় লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালানো হচ্ছে। এখানকার হাসপাতালগুলো ধারণক্ষমতার বাইরে। প্রয়োজনীয় ওষুধ শেষ হয়ে যাচ্ছে।
তিনি বলেন, ভেতরে বা আবাসিক এলাকায় যা-ই নড়ছে, সরকারি বিমান থেকে সেখানেই হামলা চালানো হচ্ছে।
স্থানীয় বাসিন্দা মাজেন আল-শামি বলেন, আবাসিক এলাকায় প্রতি মিনিটে ২০-৩০ শেল আঘাত হানছে, বিশেষ করে হামুরিয়েহ ও সাবকা এলাকায়।
সিরিয়ার প্রধান বিরোধী পক্ষ ন্যাশনাল কোয়ালিশন, যারা এখন তুরস্কে অবস্থান করছে, পূর্ব গৌতায় হামলার নিন্দা জানিয়েছে। একটি বিবৃতিতে তারা সিরিয়ার মিত্র দেশ রাশিয়ার বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রক্রিয়া বিনষ্ট করার অভিযোগ করে।
আগামী মার্চ মাসে সিরিয়ার গৃহযুদ্ধের ৭ বছর পূর্ণ হতে যাচ্ছে। এতে লাখো মানুষ মারা গেছে। ৫০ লাখের বেশি মানুষ শরণার্থী হয়েছে।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY